লুকিয়ে ভিডিও করছিল, বুঝিনি, বললেন মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ জেসিয়া(ভিডিও)

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ বিনোদন ও বিচিত্রা বার পঠিত হয়েছে

বিনোদন ডেস্ক : তিন বছর আগে মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন মুকুট অর্জন করেন জেসিয়া ইসলাম। এর আগে মডেলিং করতেন। প্রতিযোগিতার পরও বিভিন্ন পণ্য প্রতিষ্ঠানের স্থিরচিত্রের মডেল হন। এরই মধ্যে টুকটাক নাটকে অভিনয় করলেও এখন অভিনয়কে পেশা হিসেবে নিতে চান তিনি। জেসিয়া অভিনীত প্রথম নাটকের নাম ‘ছবি প্রতিচ্ছবি’। সোমবার সন্ধ্যায় কথাপ্রসঙ্গে এই মডেল জানালেন, অভিনয়ে তিনি অনেক বেশি মনোযোগী হতে চান। পাশাপাশি তাঁর পরিকল্পনার কথাও জানালেন।মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ প্রতিযোগিতার পর আমার আসলে যেভাবে কাজ করা উচিত ছিল, সেভাবে করতে পারিনি। অনেকটা সময় পার হয়ে গেছে। কিছুদিন ধরে মনে হচ্ছে কাজের মাত্রা আরেকটু বাড়ানো উচিত। অনেকে অভিনয়ের জন্য যোগাযোগও করছেন। তাই সিরিয়াস হয়েছি।

দিনকাল কেমন কাটছে?
ভালোই যাচ্ছে। সালমান মুক্তাদিরের সঙ্গে একটি অনুষ্ঠানে দেখা হয়েছিল। তুমুল সেই ঝগড়াঝাঁটির পর আমাদের প্রথম একসঙ্গে হওয়া।

ঝগড়া কি মিটেছে?
না, মেটেনি। উভয় পক্ষ বোঝাপড়ার মাধ্যমে আলাদা হয়েছি। আর অনুষ্ঠানের জন্য একত্র হয়েছি। এর বাইরে আর কিছু না। আমি আমার কাজের মনোযোগী, সালমানও তাঁর কাজে মনোযোগী। তবে আমাদের মধ্যে কোনো প্রেমের সম্পর্ক নেই।

নতুন কোনো সম্পর্কে জড়িয়েছেন কি?
না, জড়াইনি। আমার আপাতত নতুন সম্পর্কে জড়ানোর ইচ্ছেও নেই।

আপনাদের কত দিনের সম্পর্ক ছিল?
আমাদের দুই বছরের সম্পর্ক ছিল। একটা পর্যায়ে ভুল-বোঝাবুঝি তৈরি হয়। তাই সম্পর্কটা টিকিয়ে রাখতে পারিনি। এটা দুজনেরই দোষ। একটা সময় মনে করতাম, সালমান প্রতারণা করেছে। এখন মনে করি, যা হওয়ার আমার ভালোর জন্যই হয়েছে। আমার জীবনে ওই ঘটনা না ঘটলে স্ট্রং হতাম না, আবেগপ্রবণই থেকে যেতাম। ইমোশনালি আমি এখন ম্যাচিরউড ফিল করি। তখন তো আমি উত্তেজিত হয়ে ভাঙচুর করেছিলাম।

আপনার সেই ভাঙচুরের ভিডিও কে করেছিল?
পাশের বাড়ির ছাদ থেকে কে বা কারা ভিডিও করে ভাইরাল করে দিয়েছিল। ভাইরাল হওয়ার এক দিন পর তা জানতে পারি। খুব শকড হয়েছি। তৃতীয় পক্ষ লুকিয়ে ভিডিও করছিল, বুঝিনি। আমি ভেবেছি, ওই রাতে আমিই আছি, কান্নাকাটি, গেটে ধাক্কাধাক্কি করে চলে আসি। পরে দেখলাম, সবাই জেনে গেছে। আমার পার্সোনাল বিষয় আর পার্সোনাল থাকেনি বলেই খা

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।