রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে ভূমিকা রাখবে থাইল্যান্ড

৫ নভেম্বর ২০১৯ জাতীয় বার পঠিত হয়েছে

ডেস্ক রিপোর্ট :: থাইল্যান্ড রোহিঙ্গা ইস্যুতে ভূমিকা রাখার ও এই সংকটের একটি টেকসই সমাধানের উপায় বের করতে অব্যাহত প্রচেষ্টা চালিয়ে যাবে বলে বাংলাদেশকে আশ্বস্ত করেছে।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, মঙ্গলবার বাংলাদেশে নবনিযুক্ত থাই রাষ্ট্রদূত অরুণরুং ফোতোং হামফ্রেজ পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সাথে দেখা করতে এসে এ আশ্বাস দেন।

থাই রাষ্ট্রদূত ইস্যুটিতে কাজ করার এবং এ ব্যাপারে ঢাকার উদ্বেগের বিষয়টি তার সদর দফতরকে জানানোর আশ্বাস দিয়েছেন। তিনি বলেন, আসিয়ানের বিদায়ী সভাপতি হিসেবে থাইল্যান্ড রোহিঙ্গা সংকট ও এর একটি টেকসই সমাধান বের করার বিষয়টিকে সর্বাধিক প্রাধান্য দিচ্ছে।

মোমেন বলেন, দু’দেশের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য থাইল্যান্ডের পক্ষেই রয়েছে। বাংলাদেশ ২০১৮-১৯ অর্থবছরে বাংলাদেশ থাইল্যান্ডে ৪ কোটি ৪০ লাখ মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য রফতানী করেছে।

তিনি বলেন, থাইল্যান্ড বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে দু’দেশের মধ্যে যে ব্যাপক বাণিজ্য ঘাটতি রয়েছে তা হ্রাস করা সম্ভব। বাংলাদেশে চমৎকার বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ রয়েছে। বাংলাদেশে বিনিয়োগে মুনাফা দক্ষিণ এশিয়ার অন্যান্য যে কোন দেশের চেয়ে বেশি।

মোমেন বলেন, থাইল্যান্ডের উদ্যোক্তারা বাংলাদেশে যৌথ-মালিকানায় হাসপাতাল স্থাপন করলে দুই দেশের জন্যই লাভজনক হবে।

তিনি বাংলাদেশে পর্যটনের উপর প্রশিক্ষণ এবং কারিগরি সক্ষমতা গঠন কর্মসূচি আয়োজনের জন্য থাই রাষ্ট্রদূতের প্রতি আহ্বান জানান।

থাই রাষ্ট্রদূত জানান যে বাংলাদেশে স্বাস্থ্য সেবা খাতে বিনিয়োগের সম্ভাব্যতা যাচাই করতে তার মিশন থেকে ইতোমধ্যেই ব্যাংককে একটি প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।

এছাড়াও রাষ্ট্রদূত বাংলাদেশের পর্যটন খাতে থাইল্যান্ডের কারিগরি সহায়তা দেয়ার ব্যাপারে আশ্বাস দেন। তিনি জানান, ঢাকাস্থ থাই দূতাবাস ঢাকা অথবা ব্যাংককে শিগগিরই একটি বিজনেস ফোরাম স্থাপনের পরিকল্পনা করছে।

সূত্র : বাসস

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।