রোবট মুসলিম

১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ধর্ম ও জীবন, সারাদেশ, সাহিত্য ও সংস্কৃতি, সিলেট বার পঠিত হয়েছে
 মুহা. হিফজুর রাহমান

রোবট একটি যান্ত্রিক কিংবা কাল্পনিক , কৃত্রিম কার্যসম্পাদক। রোবট সাধারণত একটি ইলেক্ট্রো-যান্ত্রিক ব্যবস্থা, যার কাজকর্ম, অবয়ব ও চলাফেরা ইলেক্ট্রনিকভাবে পরিচালিত। রোবট বিভিন্ন কাজে মূলত মানুষের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। রোবট শব্দটির উৎপত্তি চেক শব্দ ‘রোবোটা’ থেকে, যার অর্থ ফোরসড লেবার বা মানুষের দাসত্ব কিংবা একঘেয়েমি খাটুনি বা পরিশ্রম করতে পারে এমন যন্ত্র। রোবট হলো কম্পিউটার নিয়ন্ত্রিত একটি স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থা, যা মানুষ যেভাবে কাজ করে ঠিক সেই ভাবেই কাজ করতে পারে অথবা এর কাজের ধরণ দেখে মনে হবে এর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা আছে। রোবটের বহুমাত্রিক সংজ্ঞা দেয়া সম্ভব। সহজ ভাষায় বলা যায়, যে যন্ত্র নিজে নিজে মানুষের কাজে সাহায্য করে এবং নানাবিধ কাজে মানুষের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত হয়, তাই রোবট। মুসলিম : মুসলমান। আল্লাহর একত্ববাদে বিশ্বাসী এক জাতি। মুহাম্মাদুর রাসূল সা. এর আদর্শে আদর্শিক এক দল। যাদের চরিত্র জন্ম থেকেই সভ্যতায় পরিপূর্ণ। যাদের মধ্যে, কোন অপরাধ সংঘটিত হওয়ার সাথে সাথেই, সমূলে বীজ উপড়ে ফেলা হয়। যারা মহান আল্লাহর বিধানকে তাদের চলাফেরা,আচার-আচরণ, বিচারকার্য সবকিছুতে লেপটে নিয়েছে। ওরাই মুসলমান। এরাই সর্দার মুহাম্মদ সা. এর আদর্শে আদর্শিক জাতি। মুসলিম রোবট :- প্রিয় উম্মাহ! আমরা যেনো রোবটে পরিণত হয়েছি।আমাদের ভেতরে কে যেনো কয়েকটিমাত্র পোগ্রামিং সেভ করে রেখেছে। এই পোগ্রাম ব্যতিত, আমরা আর কিছুই বুঝিনা। কেহ পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ছে। মসজিদে ইমামের পেছনে রুকু ও সেজদা দিচ্ছেন। তন্মধ্যে ৮০% ই বলতে পারবেনা, নামাজের কোথায় কি পড়তে হয়। সম্মানিত উম্মাহ! আমরা নামাজ, রোজা এভাবে কয়েকটা বিধানের মধ্যেই ইসলামকে সীমাবদ্ধ করে রেখেছি। অন্যদিকে আমাদের মা-বোনকে ধর্ষণ করা হচ্ছে, ভাইদেরকে শহীদ করা হচ্ছে তা আমরা ভ্রুক্ষেপই করছিনা। আমাদের প্রজন্মকে সভ্যতার দাবি করে অশ্লীলতা, বেহায়াপনা শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে তা আমরা খেয়াল’ই করছিনা। মুসলিম শিশুদেরকে কৌশলগতভাবে বিধর্মী করা হচ্ছে। নিরাপদে কীভাবে সেক্স করতে হয় তা আমাদের শিশুদেরকে শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে। আমরা নীরব। যেনো আমাদের ভেতরে, এ বিষয়ে ফিকির করার, পোগ্রামিং সেভ করে দেওয়া হয়নি। প্রিয় উম্মাহ! আর কত রোবটের মত জীবনযাপন করবেন? অপরদিকে আমাদের মা-বোনকে, বেহায়ার মত চলাফেরা করতে উদ্বুদ্ধ করা হচ্ছে অথচ আমরা টের’ই পাচ্ছিনা। প্রিয় ভাই! আর কত রোবটের মতো চেয়ে চেয়ে দেখবে? তুমিতো টিনের বাক্স নয়। তুমি আশরাফুল মাখলুখাত। সৃষ্টির সেরা জীব। ফিরে এসো মানবদেহে। স্মরণ করো তুমার অতীতকে। তুমি রোবট হলে চলবেনা। তুমাকে ইসলামের রঙে রেঙে ইসলামের ছায়াতলে ফিরে আসতেই হবে। প্রিয় ভাই! আর কত রোবটের মতো চেয়ে চেয়ে দেখবে? তুমিতো টিনের বাক্স নয়। তুমি আশরাফুল মাখলুখাত। সৃষ্টির সেরা জীব। ফিরে এসো মানবদেহে। স্মরণ করো তুমার অতীতকে। তুমি রোবট হলে চলবেনা। তুমাকে ইসলামের রঙে রেঙে ইসলামের ছায়াতলে ফিরে আসতেই হবে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।